গ্যাসের সমস্যা থাকলে সকালে যে ৫ খাবার খাবেন না – News Portal 24
ঢাকাSaturday , ৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

গ্যাসের সমস্যা থাকলে সকালে যে ৫ খাবার খাবেন না

নিউজ পোর্টাল ২৪
ফেব্রুয়ারী ৩, ২০২৪ ২:১৮ অপরাহ্ন
Link Copied!

সকালের নাস্তাকে দিনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ খাবার হিসেবে বিবেচনা করা হয়। সারারাত পেট খালি থাকার পর এটি আপনাকে শক্তি যোগায়। সকালের নাস্তা দিনের বাকি সময়ের জন্য শরীর ঠিক করতেও সাহায্য করে। অতএব, সকালে আপনি কী খাচ্ছেন তার খেয়াল রাখা গুরুত্বপূর্ণ।

মেডিক্যাল নিউজ টুডে-এর মতে, আমাদের খাওয়া খাবারের কারণে পেট ফাঁপার মতো সমস্যা দেখা দেওয়া একটি সাধারণ ঘটনা, কারণ শরীর খাবার হজম করার সময় গ্যাস তৈরি করে। তাই খাবার হজম হতে যত বেশি সময় লাগবে, গ্যাস উৎপাদনের ঝুঁকি তত বাড়বে, ফলে আপনার পেট ফাঁপার সমস্যা দেখা দিতে পারে।

গ্যাসের সমস্যা কমাতে সকালের নাস্তায় আপনাকে অবশ্যই ৫টি খাবার এড়িয়ে চলতে হবে। ভারতীয় পুষ্টিবিদ নমামি আগরওয়ালের মতে, অতিরিক্ত গ্যাস এবং পেট ফাঁপা অস্বস্তিকর, তবে খাদ্যতালিকায় সামঞ্জস্য করতে পারলে তা আপনার গ্যাসের সমস্যা কমিয়ে স্বস্তি দিতে পারে। তিনি সকালে আপনাকে যে খাবারগুলো এড়িয়ে চলতে হবে সেগুলোরও উল্লেখ করেছেন এবং এর কারণ ব্যাখ্যা করেছেন।

১. অতিরিক্ত চা এবং কফি

অনেকেই এক কাপ চা বা কফি ছাড়া আপনার দিন শুরু করতে পারেন না। তবে এটি অতিরিক্ত পরিমাণে খেলে পেটে অ্যাসিডের উৎপাদনকে উদ্দীপিত করতে পারে, যার ফলে গ্যাসের গঠন বৃদ্ধি পায়। চায়ের সঙ্গে দুধ যোগ করলে তা ল্যাকটোজ ইনটলারেন্স বাড়িয়ে দিতে পারে, যা হজমের সমস্যা সৃষ্টি করে। তাই সকালের ঘুম কাটাতে আপনার যদি চা কিংবা কফির প্রয়োজন হয়, তবে ভেষজ চা বেছে নিন।

২. ফুলকপি এবং বাঁধাকপি

ফুলকপি এবং বাঁধাকপি বেশ উপকারী সবজি। তবে এ ধরনের সবজি সকালে এড়িয়ে যাওয়াই হবে বুদ্ধিমানের কাজ। সকালে খাওয়ার বদলে এগুলো দুপুরে খেতে পারেন। এই দুই সবজিতে জটিল কার্বোহাইড্রেট থাকে যা হজম করা শক্ত। যে কারণে তা গ্যাস উৎপাদন বাড়িয়ে দেয়।

৩. আপেল এবং নাশপাতি

প্রতিদিন একটি আপেল ডাক্তারকে দূরে রাখে – আমরা সবাই এই কথা শুনে বড় হয়েছি। কিন্তু এর মানে এই নয় যে এটি দিনের প্রথমে নাস্তা হিসেবে খাবেন। আপেল এবং নাশপাতি উভয়েই প্রচুর পরিমাণে ফ্রুক্টোজ এবং ফাইবার থাকে, যা পেট ফাঁপা এবং গ্যাসের কারণ হতে পারে। এর পরিবর্তে আপনার খাদ্যতালিকায় অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যোগ করার জন্য একমুঠো বেরি খেতে পারেন।

৪. কাঁচা শসা এবং পেঁয়াজ

আপনি যদি সকালের নাস্তায় শসা-পেঁয়াজের সালাদ খেয়ে থাকেন, তাহলে এখনই তা করা বন্ধ করুন।বিশেষজ্ঞের মতে, কাঁচা শাক-সবজি, বিশেষ করে শসা এবং পেঁয়াজের মতো উচ্চ ফাইবারযুক্ত সবজি ভাঙতে অসুবিধা হতে পারে, যা গ্যাস সৃষ্টি করে। এর পরিবর্তে আপনার দিনটির স্বাস্থ্যকর শুরু করতে রান্না বা সেদ্ধ সবজি খেতে পারেন।

৫. ভুট্টা

ভুট্টায় সেলুলোজ থাকে যা এক ধরণের ফাইবার। এটি কারও কারও জন্য হজম করা কঠিন হতে পারে। যদি ভুট্টার তৈরি খাবার অস্বস্তি সৃষ্টি করে, তবে এর বিকল্প হিসেবে কুইনো বা চালের মতো বিকল্প শস্য বেছে নিন।