স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করে মামলা তুলে নিতে হত্যাসহ বাড়িঘর ছাড়া করার হুমকি ছাত্রলীগ নেতার! – News Portal 24
ঢাকাTuesday , ৪ মে ২০২১

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করে মামলা তুলে নিতে হত্যাসহ বাড়িঘর ছাড়া করার হুমকি ছাত্রলীগ নেতার!

নিউজ পোর্টাল ২৪
মে ৪, ২০২১ ৪:৩৮ অপরাহ্ন
Link Copied!

নিউজ পোর্টাল ২৪ ডেস্ক:: গাজীপুরের কালীগঞ্জে ৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীকে অর্থের প্রলোভন ও হত্যার ভয় দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক নূরুল হাসানের বিরুদ্ধে।

গত ১৫ এপ্রিল রাতে উপজেলার জাংগালিয়া ইউনিয়নে এমন ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করে ওই ছাত্রীর পরিবার। এরপর মামলা তুলে নিতে বাদীসহ ভিকটিমের পরিবারকে হত্যাসহ বাড়িঘর ছাড়া করার হুমকি দিচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে অভিযুক্ত ছাত্রলীগ নূরুল হাসান ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে।

এদিকে লম্পট নূরুল হাসানকে দ্রুত গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে এলাকাবাসী এক প্রতিবাদ সভা করেন। মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার জাংগালিয়া ইউনিয়নে বাঙ্গালগাঁও ফকিরবাড়ি চৌরাস্তা মোড়ে ভুক্তভোগীসহ এলাকার লোকজন এ প্রতিবাদ সভা করেন।

সভায় বক্তব্য রাখেন, ছোবাহান ফকির, আল-আমিন ফকির, আব্দুস সাত্তার, অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা কামরুল হাসান, মাসুম ফকির, মাসুদ ফকির, মরিয়ম, হালিমা বেগম, সুমি আক্তার, তানিয়া, মোশারফ হোসেন, সাবিনা ও আলকণা নেছা প্রমুখ।

সভায় বক্তারা বলেন, ‘নূরুল ওহাবের ছেলে ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে এলাকায় একের পর এক অপকর্ম করে যাচ্ছে। তাদের বিরুদ্ধে কেউ কোনো কথা বললে নিরীহ মানুষদের বিভিন্ন মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করারও অভিযোগ উঠেছে তাদের বিরুদ্ধে।’

এমনকি এ প্রতিবাদ সভায় যারা অংশগ্রহণ করেছে তাদেরও মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করার চেষ্টা করবে ওই প্রভাবশালী চক্র।

ভিকটিমের পরিবার জানায়, ‘অভিযুক্ত ধর্ষক এলাকায় এসে মামলা তুলে নিতে তাদের হত্যাসহ বিভিন্ন হুমকি দিচ্ছে। এদিকে আসামি এলাকায় প্রকাশ্যে ঘুরাফেরা করছে। আসামিকে ধরতে মামলার আইওকে বারবার ফোন করলেও তিনি রহস্যজনক কারণে আসামি ধরতে কালক্ষেপণ করছেন বলেও অভিযোগ উঠেছে মামলার কর্মকর্তার বিরুদ্ধে।’

এ বিষয়ে মামলার কর্মকর্তা এসআই মো. শুক্কুর মিয়া বলেন, ‘অভিযোগ মিথ্যা, সোমবার আসামি ধরার জন্য ওই এলাকায় ২ ঘণ্টা অবস্থান করেছিলাম।’

বুধবার (০৪ মে) বিকালে সরেজমিন জানা যায়, ‘১৪ বছরের স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে অর্থের প্রলোভন ও হত্যায় ভয় দেখিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই জোরর্পূবক ধর্ষণ করে আসছে নূরুল হাসান।’

ভিকটিম বলেন, ‘এক বছর পূর্বে নূরুল হাসান কথা আছে বলে আমাকে তার ঘরে নিয়ে দরজা বন্ধ করে আমার মুখ কাপড় দিয়ে বেঁধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। ঘটনার পর আমি কান্নাকাটি করলে ঘটনাটি কাউকে জানালে হাসানের বোন নীলাকে যেভাবে হত্যা করে ঝুলিয়ে রাখা হয় সেভাবে আমাকেসহ আমার পরিবারের সবাইকে হত্যা করে লাশ গুম করার হুমকি দেয় সে।’

ভিকটিমের পরিবার জানায়, ‘গত ১৫ এপ্রিল বৃহস্পতিবার রাতে প্রাকৃতিক ডাকে সাড়া দিতে বাহিরে গেলে ওতপেতে থাকা লম্পট নূরুল হাসান স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে জাপটে ধরে টানাহেঁচড়া করে। তার চিৎকারে আমরা ঘর থেকে বের হলে ঘটনা প্রকাশ না করার হুমকি দিয়ে চলে যায় সে। এমনকি কারও কাছে ঘটনাটি প্রকাশ করলে এবং এ বিষয়ে কোনো মামলা করলে বাড়িঘরসহ পুড়িয়ে মারার হুমকি দেয়।’ সূত্র: যুগান্তর